ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী

আপনি কি ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী ও ভাড়া তালিকা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে ইচ্ছুক? এবং যদি ঢাকা টু চাঁপাই রুটে নিয়মিত যাতায়াত করে থাকেন বা ভ্রমণ করতে পছন্দ করে থাকেন। তাহলে আজকের পোস্টটি আপনার জন্য। আজকের আর্টিকেলে তুলে ধরব ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী ও ভাড়া সম্পর্কে যাবতীয় সকল বিষয়।
ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী
ঢাকা টু চাঁপাই রুটে মাত্র একটি আন্তঃনগর ট্রেন নিয়মিত চলাচল করে। ট্রেনটি হচ্ছে বনলতা এক্সপ্রেস।ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনে ভ্রমণের জন্য আপনি এই আর্টিকেলে বনলতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী, ভাড়ার তালিকা, স্টপেজ, এবং অন্যান্য যাবতীয় তথ্য সহ বিস্তারিত জানতে পারবেন। এই পোস্টটি পড়ে আপনি নিরাপদে এবং সহজে ভ্রমণ করতে পারবেন

পেজ সূচিপত্রঃ ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী

ভূমিকা

ট্রেনে ভ্রমণের ব্যয় অন্য পরিবহণের তুলনায় সস্তা, এবং এটি সকল শ্রেণীর মানুষ অনায়াসে ট্রেনে ভ্রমণ করতে পারেন। এছাড়া ট্রেনে দীর্ঘ পথ অতিক্রম করার জন্য অনেক ধরণের সুবিধা থাকে, যা অন্য কোন পরিবহণে পাওয়া যায় না। এই কারণে অধিকাংশ মানুষের কাছে ট্রেন হলো সবচেয়ে সহজ এবং ভালো যাত্রা পরিবহন।
তাই বলা যায়, ৩১৬ কিমি দীর্ঘতম পথে এই রুটে ট্রেন ভ্রমণ শ্রেয়। তাছাড়া প্রতিদিন অধিকাংশ ভ্রমণকারী ট্রেনে করে ঢাকা থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ যাতায়াত করে থাকেন । আর এই ভ্রমণকারীদের জন্যই আজকের আর্টিকেলে ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী নিয়ে আলোচনা করব।

ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেন সম্পর্কে সংক্ষেপে

২০১৯ সালের ২৫ এপ্রিল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে দেশের জাতীয় পতাকা নেড়ে ও বাঁশি বাজিয়ে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে রাজশাহী-ঢাকা রুটে বিরতিহীন আন্তঃনগর এক্সপ্রেস বনলতার উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তখন রাজশাহী থেকে ভিডিও কনফারেন্সে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন।
তবে কয়েকদিন এই রুটে চলাচল করার পর ১৭ই জুলাই ২০১৯ তারিখে ট্রেনটিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ পর্যন্ত চলাচলের জন্য অনুমতি দেওয়া হয়। এর আরো কয়েকদিন পর ২০২০ সালের জানুয়ারির প্রথম দিকে নীলসাগর এক্সপ্রেস ট্রেনটিকে দিয়ে ভারত থেকে আমদানিকৃত অত্যাধুনিক বিলাসবহুল এলএইচবি কোচ বনলতা এক্সপ্রেস ট্রেনে যুক্ত করা হয়।

এছাড়াও ঢাকা থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ একটি মেইল ট্রেন যাতায়াত করে। সেটি হচ্ছে রাজশাহী এক্সপ্রেস।

ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী

ঢাকা টু চাঁপাই ভ্রমণের জন্য সময়সূচী যারা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। সময়সূচী জানার ফলে সঠিক সময়ে ভ্রমণের সিদ্ধান্ত নেয়া সম্ভব হয়। ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী নিচে দেয়া হল।
আন্তঃনগর ট্রেন - বনলতা এক্সপ্রেস (ট্রেন নংঃ ৭৯১)
  • ঢাকা থেকে প্রস্থানের সময়ঃ ১৩ঃ৩০
  • চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌঁছার সময়ঃ ১৯ঃ৩০
  • বন্ধঃ শুক্রবার
মেইল ট্রেন - রাজশাহী এক্সপ্রেস (ট্রেন নংঃ ০৫)
  • ঢাকা থেকে প্রস্থানের সময়ঃ ১২ঃ২০
  • চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌঁছার সময়ঃ ২২ঃ৩০
  • বন্ধঃ নাই
এই সময়সূচীতে রয়েছে ইন্টারসিটি ট্রেন এবং মেইল ট্রেনের তথ্য। যে কোনও পরিবর্তনের জন্য সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিতে বা আপডেট তথ্যের জন্য আপনি স্থানীয় রেলওয়ে অফিসে যোগাযোগ করতে অথবা অনলাইনে রেলওয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট দেখতে পারেন।

ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের ভাড়ার তালিকা

ধরন, শ্রেণী, সুযোগ সুবিধা, দূরত্ব ইত্যাদি বিষয়ের উপর ভিত্তি করে ভাড়া নির্ধারিত হয়। এছাড়া আন্তঃনগর ট্রেন এবং মেইল ট্রেনের ভাড়া অনেক পার্থক্য রয়েছে। বনলতা এক্সপ্রেস ট্রেন এবং রাজশাহী এক্সপ্রেস ট্রেনের ঢাকা টু চাঁপাইনবাবগঞ্জ রুটের ভাড়া তালিকা নিম্নে দেওয়া হল।


বনলতা এক্সপ্রেস
  • শোভন চেয়ারঃ ৪২৫ টাকা
  • স্নিগ্ধাঃ ৮১০ টাকা ( ভ্যাট সহ)
  • ফাস্ট ক্লাস চেয়ারঃ তালিকাভুক্ত নয়
  • ফাস্ট ক্লাস বার্থঃ তালিকাভুক্ত নয়
  • এসি চেয়ারঃ ৯৭৬ টাকা ( ভ্যাট সহ)
  • এসি বার্থঃ তালিকাভুক্ত নয়
রাজশাহী এক্সপ্রেস
  • শোভন চেয়ারঃ ৩৫০ টাকা
  • স্নিগ্ধাঃ ৬৫০ টাকা
  • ফাস্ট ক্লাস চেয়ারঃ তালিকাভুক্ত নয়
  • ফাস্ট ক্লাস বার্থঃ তালিকাভুক্ত নয়
  • এসি চেয়ারঃ ৮০০ টাকা
  • এসি বার্থঃ তালিকাভুক্ত নয়
উল্লেখযোগ্য যে, ট্রেনের সব শ্রেণির ভাড়া একই নয়, এবং এটি পরিবর্তন হতে পারে। সর্বশেষ ও সঠিক তথ্যের জন্য, আপনি বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট বা স্থানীয় ট্রেন স্টেশনে যোগাযোগ করতে পারেন।

টিকিট ক্রয় করার উপায়
ষ্টেশন থেকেঃ ট্রেনের ষ্টেশন কাউন্টার হতে সরাসরি টিকিট ক্রয় করতে পারেন।

অনলাইনেঃ অনলাইনে বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট বা অন্যান্য অনলাইন টিকিট প্ল্যাটফর্মে লগইন করে টিকিট ক্রয় করতে পারেন।

উপরের তথ্যগুলি পরিবর্তন হতে পারে, তাই ট্রেনে যাত্রা শুরু হওয়ার আগে সর্বশেষ তথ্য পেতে আপনি বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট বা অন্যান্য যাচাই মাধ্যমগুলি ব্যবহার করতে পারেন।

ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের ট্রেনের বিরত স্টেশন সমূহ

"বিরত স্টেশন" হলো ট্রেনের যাত্রীদের জন্য থামার ও উঠার জন্য প্রস্তুতকৃত একটি স্থান বা স্টপেজ পয়েন্ট।এই রুটের বিরত স্টেশন সমূহ নিচে দেওয়া হল।

বনলতা এক্সপ্রেস (৭৯১)
  • বিরতি স্টেশনঃ বিমান বন্দর
  • বিরতি স্টেশনঃ রাজশাহী
রাজশাহী এক্সপ্রেস (৫)
  • বিরতি স্টেশনঃ রাজশাহী এক্সপ্রেস ট্রেনটি যাত্রাপথে বিভিন্ন স্টেশনে যাত্রাবিরতি দেয়।

ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের ট্রেনের ছুটির দিন সমূহ

বনলতা এক্সপ্রেস এবং রাজশাহী এক্সপ্রেস ট্রেনের ছুটির দিনগুলি নিম্নে দেওয়া হলোঃ
  • বনলতা এক্সপ্রেস ঢাকা থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জঃ  শুক্রবার
  • রাজশাহী এক্সপ্রেস ঢাকা থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ ছুটি নাই

আজকের আর্টিকেলে সচরাচর প্রশ্ন

প্রশ্নঃ ট্রেনে কি সুবিধা রয়েছে?
উত্তরঃ ট্রেনে আছে বিভিন্ন ধরণের ক্লাস যেমন শোভন চেয়ার, স্নিগ্ধা, এসি চেয়ার ইত্যাদি। অত্যাধুনিক সুবিধাসমূহ সহজলভ্য।
প্রশ্নঃ ট্রেনে ভ্রমণের জন্য টিকিট কোথা থেকে কিভাবে কিনতে হয়?
উত্তরঃ টিকিট স্থানীয় রেলওয়ে স্টেশনে অথবা অনলাইনে কেনা যায়। অনলাইনে টিকিট ক্রয় করতে আপনি বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট ব্যবহার করতে পারেন অথবা অনলাইন টিকেট প্ল্যাটফর্মগুলি ব্যবহার করতে পারেন।
প্রশ্নঃ ভ্রমণের জন্য কি ধরণের সিট উপলব্ধ আছে?
উত্তরঃ ট্রেনে শোভন চেয়ার, স্নিগ্ধা, এসি চেয়ার ইত্যাদি ধরণের সিট উপলব্ধ থাকতে পারে।
প্রশ্নঃ ট্রেনের সময়সূচি এবং বিরতি স্থান কী কী?
উত্তরঃ সময়সূচি এবং বিরতি স্থান নিয়ে জানার জন্য আপনি বাংলাদেশ রেলওয়ের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট বা অন্যান্য রেলওয়ে সংবাদপত্রে অনুসন্ধান করতে পারেন।
প্রশ্নঃ ভ্রমণের জন্য কোন ধরণের সুরক্ষা ব্যবস্থা রয়েছে?
উত্তরঃ বাংলাদেশ রেলওয়ে ভ্রমণকারীদের সুরক্ষা জন্য বিশেষ ব্যবস্থা নিয়েছে। ভ্রমণের সময় ভ্রমণকারীদের জন্য সুরক্ষা ব্যবস্থা করা হয়েছে।

শেষ কথাঃ ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী

আজকের আর্টিকেলে ঢাকা টু চাঁপাই ট্রেনের সময়সূচী এবং ভাড়া সহ যাবতীয় তথ্য আলোচনা করেছি। আজকের আলোচিত সকল তথ্যই বাংলাদেশ রেলওয়ের উপর ভিত্তি করে তৈরি করা হয়েছে, এবং এই তথ্যের উপর ভিত্তি করে আপনি নিরাপদ ভ্রমণ করতে পারবেন। আমাদের সাইটে সকল আপডেট তথ্য পাওয়া যাবে।
আজকের আর্টিকেল সম্পর্কে আপনার গুরুত্বপূর্ণ মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে পারবেন। আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ।

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

Dev Serp এর নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url